পিটার ডি হাসকে হত্যার হুমকির অভিযোগে চট্টগ্রামের আদালতে মামলা

যুক্তরাষ্ট্রের রাষ্ট্রদূত পিটার ডি হাসকে হত্যার হুমকি দেওয়ার অভিযোগে বাঁশখালী ও মহেশখালী উপজেলার ৮ আওয়ামী লীগ নেতার বিরুদ্ধে আদালতে মামলার আবেদন করা হয়েছে। আদালত মামলাটি আদেশের জন্য রেখেছেন।

বুধবার(২৯নভেম্বর) চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট-৪ মো. সালাউদ্দিনের আদালতে মামলাটির আবেদন করেন কেন্দ্রীয় ছাত্রদলের সাবেক সহ সভাপতি এম এ হাশেম রাজু। মামলার এজাহারে তিনি নিজেকে আন্তর্জাতিক মানবাধিকার কমিশনের বাংলাদেশ চ্যাপ্টারের প্রেসিডেন্ট পরিচয় দেন।

মামলার আসামিরা হলেন বাঁশখালী উপজেলার চাম্বল ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের আহ্বায়ক মুজিবুল হক চৌধুরী, মহেশখালীর উপজেলা আওয়ামী লীগের সহ সভাপতি ফরিদুল আলম, চাম্বল ইউনিয়ন পরিষদের সদস্য ইফতেখার উদ্দিন বাবু, সাজ্জাদ, এহচান, ফরহাদ, নাছির ও সাইফুল।

বাদীর আইনজীবী অ্যাডভোকেট মো. ইরফান উদ্দীন মামলার বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, বাংলাদেশে নিযুক্ত মার্কিন রাষ্ট্রদূত পিটার ডি হাসকে হত্যার হুমকি দেওয়ার অভিযোগে আদালতে মামলার আবেদন করা হয়েছে। আদালত মামলার বাদী এম এ হাশেম রাজুর জবানবন্দি রেকর্ড করেন। আদালত মামলাটি আদেশের জন্য রেখেছেন।

মামলার এজাহারে বাদী উল্লেখ করেন, গত ৬ নভেম্বর মার্কিন রাষ্ট্রদূত পিটার ডি হাসকে হত্যার হুমকি দিয়ে বক্তব্য দেন বাঁশখালী উপজেলার চাম্বল ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মুজিবুল হক চৌধুরী ও কক্সবাজারের মহেশখালী উপজেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি ফরিদুল আলম।

তাদের ওই বক্তব্যের ভিডিও ফুটেজ সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ছড়িয়ে পড়ে। এতে তিনি ব্যথিত হয়েছেন। এর পরিপ্রেক্ষিতে মামলার আবেদন করা হয়েছে।

মামলার বাদী এম এ হাশেম রাজু বলেন, যুক্তরাষ্ট্রের রাষ্ট্রদূত পিটার ডি হাস দেশে নিরপেক্ষ নির্দলীয় সরকারের অধীনে অবাধ ও সুষ্ঠু নির্বাচনের কথা বলেছেন। এ কারণে তাকে হত্যার হুমকি দেওয়া হয়েছে। তিনি নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছেন। হুমকিদাতাদের বিচারের মুখোমুখি করা প্রয়োজন। এ কারণে আমি মামলাটি করেছি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *