রূপগঞ্জে গ্রামবাসীর উপর হামলায় আহত – ১০

আবু কাওছার

 রূপগঞ্জের দাউদপুর ইউনিয়নের মাঝিপাড়া লালমাটি এলাকায় জমি দখল, অবৈধভাবে বালু ভরাট ও ভূমিদস্যুতার প্রতিবাদকারী গ্রামবাসীদের উপর  চেয়ারম্যান নূরুল ইসলাম জাহাঙ্গীর গং হামলা চালিয়েছে বলে থানায় অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে। অভিযোগ সূত্রে জানা যায়  রবিবার (৪ঠা ফেব্রুয়ারী)  রাতে বাণিজ্যমেলা থেকে বাড়িতে ফিরে যাওয়ার সময় আগে থেকে উৎ পেতে থাকা জাহাঙ্গীর গংরা  হামলায় দশ গ্রামবাসী আহত হয়। আহতদের ঢাকার বিভিন্ন হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। 

পুলিশ জানায়, রাজউকের পূর্বাচল উপশহর সংলগ্ন রূপগঞ্জের দাউদপুর ইউনিয়নের কালনী, জিন্দা, ওলব, তিনওলব, বীর হাটাবো, দাসেরদিয়াসহ আশপাশের গ্রামের তিন ফসলী জমির উপর একাধিক আবাসন প্রকল্পের নজরে আসে। জমি ক্রয়, বালু ভরাট, জবর দখলসহ আবাসন প্রকল্পের পক্ষে কাজ করার জন্য স্থানীয় প্রভাবশালী, আওয়ামীলীগ নেতা, ইউপি চেয়ারম্যান, মেম্বার ও সন্ত্রাসীদের নিয়োগ করে। জমির অংশ কিনে কিংবা কোন কোন কৃষকের ফসলি জমি না কিনেও তারা দখলে নিয়ে বালু ভরাট করে ফেলে। জোর করে জমিতে সাইনবোর্ড লাগিয়ে দেয়। এ নিয়ে কৃষকদের মধ্যে অসন্তেুাষ দেখা দেয়। একপর্যায়ে কৃষকদের পক্ষ নেওয়ায় গ্রামবাসীদের সঙ্গে ভূমিদস্যুদের নিয়োজিত সন্ত্রাসীদের মধ্যে বিরোধ চলে আসে। এ ঘটনায় গত ৪ঠা ফেব্রুয়ারী রবিবার রাতে মাঝিপাড়া লালমাটি এলাকায় ওত পেতে থাকা সন্ত্রাসীরা রাম-দা, ছেনদা, কিরিচ, চাকু, ছোরা, লোহার রডসহ দেশীয় অস্ত্রে-শস্ত্রে সজ্জিত হয়ে গ্রামবাসীর উপর হামলা চালায়। হামলায় আহত কালনী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সভাপতি আক্তারুজ্জামান(৪০), রাকিব(৩০), রাহাত মোল্লা(২৫), আসিফ দেওয়ান(২২),  সানি মালুম(২৩) ও ইসমাঈলকে(২১) ঢাকার এভারকেয়ার হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

 আহতদের দেখতে বস্ত্র ও পাট মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি গোলাম দস্তগীর গাজী বীরপ্রতীক হাসপাতালে যান।   

এ ব্যাপারে কালনী গ্রামের জমির মালিক কৃষক সেলিম মিয়া বাদী হয়ে দাউদপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও আবাসন প্রকল্পের নিয়োজিত প্রতিনিধি নুরুল ইসলাম জাহাঙ্গীর(৫৫), জালাল(৪২), আশিকুল ইসলাম খোকন(৩২), রুবেল(৩৫), বুলবুল(২৫), সাজিদ(৩৪), শাকিল(৩৭), সজিব(৩৮), ইমান আলী(৪৭), শুভ(৩০), বিপ্লব(৩৫), জবল হক(৪৫), দেলোয়ার হোসেন(৪৮), আল-আমিন(৩৫), মোতালিব(৩২), তৌহিদ(৪০), নজরুল ইসলাম(৪৫), হারিজুল(৩০), আসাদুজ্জামান রিফাত(৩৫), তপু(২৬), সাগর(২৫), সুমন(২৬), সানি(৩০), রুবেল(২৮), লায়েছ(৪৫), মঞ্জুর হোসেন(৩৫), গোলজার(৪৫), আরমান মিয়া(৪৩), কাইয়ুম(৩০)কে আসামী করে রূপগঞ্জ থানায় মামলা দায়ের করেছেন। 

রূপগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ দীপক চন্দ্র সাহা বলেন, এ ব্যাপারে রূপগঞ্জ থানায়  মামলা রুজু করা হয়েছে। আসামীদের গ্রেফতারে পুলিশ তৎপর রয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *